সোমবার, ডিসেম্বর ১১, ২০১৭, ১:৫৫:৫৩ অপরাহ্ণ
Home » সারাদেশ » মৌলভীবাজারে জুনিয়র সিনিয়র দ্বন্ধে দুই ছাত্রলীগ কর্মী খুন

মৌলভীবাজারে জুনিয়র সিনিয়র দ্বন্ধে দুই ছাত্রলীগ কর্মী খুন

 

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি ॥ মৌলভীবাজারের জুনিয়র সিনিয়র দ্বন্ধে একই গ্রুপের দুই ছাত্রলীগ নেতা খুন হয়েছেন। গতকাল (বৃহস্পতিবার) সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে মৌলভীবাজার সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়ের খেলার মাঠে এঘটনা ঘটে। অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে তাদের মৃতু হয়েছে বলে হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে। নিহতরা হলেন মোহাম্মদ আলী সাহাবাব (১৮)। সে শহরের পুরাতন হাসপাতাল এলাকার আবু বকর সিদ্দিকীর পুত্র ও মৌলভীবাজার সরকারী কলেজের অনার্স ২য় বর্ষের ছাত্র। অপরজন নাহিদ আহমদ মাহি (১৬)। সে কনকপুর ইউনিয়নের দূর্লভপুর গ্রামের বিল্লাল মিয়ার পুত্র ও মৌলভীবাজার সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০ম শ্রেণীর শিক্ষার্থী বলে জানা গেছে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সন্ধ্যার দিকে হঠাৎ করে সরকারী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠের পূর্বপাশের প্রধান ফটক দিয়ে গাড়ি (টেম্পু) যোগে রক্তকরন অবস্থায় দু’জনকে নিয়ে যেতে দেখেছেন। এসময় ওদের সাথে গাড়িতে আরো সমবয়সী আরো ২-৩ জন ছিল। নিহত উভয়েই জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক গ্রুপের সক্রিয় কর্মী বলে দলীয় সুত্রে জানাগেছে। মৌলভীবাজার মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ সুহেল আহম্মদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ছাত্রলীগের অভ্যন্তরীণ কোন্দলের জের ধরে এ হত্যাকান্ডরে ঘটনা গঠতে পারে বলে ধারনা করছি। বিষয়টি তদন্ত্য করে দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

 

 

 

 

সৈয়দপুরে চিকিৎসকের বাসায় ডাকাতি, সন্দেহভাজন ভাড়াটে আটক
নওসাদ আনসারী, সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি ॥
নীলফামারী সৈয়দপুরের বাঙালিপুরে স্বাচিপের সাবেক সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা ডা. শাহ মতিয়ার রহমানের বাড়িতে দু:সাহসিক ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। ডাকাতরা নগদ ৫ লাখ টাকা, চারটি অ্যানড্রয়েড মোবাইল সেট, ২০ ভরি স্বর্ণালঙ্কারসহ মালামাল নিয়ে চম্পট দিয়েছে।
বৃহস্পতিবার ভোররাতে (৭ ডিসেম্বর) ৬/৭ জনের একটি ডাকাত দল ওই ডাকাতির ঘটনা ঘটায়। ডাকাত দল দেশিয় অস্ত্র নিয়ে ওই এলাকার ডা. মতিয়ার রহমানের বাসার নিচতলার ভাড়াটিয়া ফুয়াদের বাসায় প্রথমে প্রবেশ করে। তাকে নিয়ে ডাকাত দল উপর তলায় চিকিৎসকের বাসায় যায়। এসময় গলায় হাসুয়া ধরে আলমারির চাবি নেয়।
ডাকাতরা অস্ত্রের মুখে চিকিৎসকের কাছ থেকে চাবি নিয়ে নগদ ৫ লাখ টাকা, চারটি অ্যানড্রয়েড মোবাইল সেট, একটি আইফোন, ২০ ভরি স্বর্ণালঙ্কারসহ মালামাল নিয়ে যায়। ডাকাতরা চিকিৎসকের স্ত্রী মিসেস শামীম আরা (৪৭), কন্যা মেডিকেল কলেজ ছাত্রী রুবাইয়াত রহমান (২২) ও নাতনি নাওয়ার (৯) কে বেঁধে রাখেন এবং মারপিট করেন। এ ঘটনায় পুলিশ ওই বাসার নিজ তলার ভাড়াটিয়া ফুয়াদকে সন্দেহভাজন হিসেবে আটক করেছে।
নীলফামারী জেলা পুলিশ সুপার মো. জাকির হোসেন খান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবুল বাসার মো. আতিকুর রহমান, সিনিয়র সহকারি পুলিশ সুপার মো. জিয়াউর রহমানসহ র‌্যাবের একটি দল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।
সৈয়দপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. শাহজাহান বলেন, ডাকাতির ঘটনায় জড়িত সন্দেহে বাসার নীচতলার ভাড়াটিয়া নীলফামারী জেলা সদরের বেসরকারি প্রতিষ্ঠান আরডিআরএসের ওয়াশ প্রজেক্টের মনিটরিং অফিসার ফুয়াদ আলী খানকে (৩৬) আটক করেছে পুলিশ। সে রংপুর শহরের মুন্সিপাড়া এলাকার মৃত. আশেক আলীর পুত্র।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *